শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:৪৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
একটি ভিত্তিহীন কথা, “যারা দাওয়াতের কাজ করবে তাদের ইলম না থাকলেও আল্লাহ নিজ ইলম থেকে তাদের ইলম দেবেন” সরকার ভ্যাকসিন বাধ্যতামূলক করেছে, একজন মুমিনের উচিত এর ভিতরেও নিজের আখেরাতের কিছু ফিকির করা। বুরকিনা ফাসোতে শুরায়ী নেজামের অধিনে শেষ হলো পুরনোদের জোড় শুরায়ী নেজামের অধিনে চলছে গিনি বিসাউ ইজতেমা অতিসম্প্রতি চলে গেলেন দারুল উলূম দেওবন্দের কয়েকজন ওস্তাদ আল্লামা আব্দুল খালেক সাম্ভলী (রহ) এর জানাজা রাত ১১ টায় শুরায়ী নেজামের মারকাযের সাথে যারা আছে এরা কি আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাত থেকে বেরহয়ে গেছে ? মাওলানা সাদ সাহেবের দলীলবিহীন গায়বী কথা বলা ও বিদআত আবিষ্কার করা তাবলীগ জামাতের বর্তমান সংকট এর অন্যতম একটি কারন। রোজার কাযা ও কাফ্ফারা বিধান ইবাদতের বসন্ত কাল, মাহে রমজান বিদায় নিচ্ছে আমাদের থেকে
অতিসম্প্রতি চলে গেলেন দারুল উলূম দেওবন্দের কয়েকজন ওস্তাদ

অতিসম্প্রতি চলে গেলেন দারুল উলূম দেওবন্দের কয়েকজন ওস্তাদ

মাওলানা আব্দুল মজিদঃ অতিসম্প্রতি মহান আল্লাহ তাআলার কাছে চলে গেলেন দারুল উলূম দেওবন্দের কয়েকজন ওস্তাদ ,

যাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য মুফতী সাঈদ আহমদ পালনপুরী রহ, , মুফতী জামীল আহমদ সাহেব রহ, মাওলানা কারী ওসমান মনসুরপুরী রহ, হযরত মাওলানা নূরে আলম খলিল আমিনী রহ, আর গতকাল চলে গেলেন মাওলানা আব্দুল খালেক সাম্ভলী রহ, আলহামদুলিল্লাহ্ আমি তাদের সকলের ছাত্র এবং সহচর্যপেয়ে ধন্য ৷

আহ্ ! কি চমৎকার জীবন যে মালিকের কথা সারা জীবন বলে গেছেন আজ সে মালিকের কাছে মেহমান হিসাবে হাজির হয়ে গেলেন ৷

ইসলাম সম্পর্কে যতটুকু কথা উম্মতের কাছে আমরা পৌঁছায় তার কোনটাই মায়ের পেট থেকে শিখে আসিনি ৷ এগুলো সবই আমাদের এসকল ওস্তাদদের শেখানো ৷

ফলে তারা আমাদেরকে মহান আল্লাহর মত এক মালিকের সাথে পরিচয় করিয়েছেন , আখেরাতের মত এক কঠিন বাস্তবতার সাথে পরিচয় করিয়ে দিয়েছেন ইসলামের মত একটি মহান দ্বীনের সাথে সম্পর্ক জুড়ে দিয়েছেন, তাদের এসকল অবদানের কথা যদি আমরা স্মরণ করি তাহলে তাদের কাছে আমরা চির ঋণী, তাদের জন্য মাগফেরাতের দোয়া করতে আমরা বাধ্য, এটা আমাদের উপরে তাদের হক ৷

তাই দেশ ও জাতির কাছে তাদের মর্যাদা বুলন্দীর জন্য দোয়ার প্রত্যাশা করছি ৷ আল্লাহ তা’আলা তাদের কবরকে নূর দ্বারা ভরে দেন , তাদের শুণ্য জায়গাগুলি পূর্ণ করার ব্যবস্থা করেন ৷

মাওলানা আব্দুল খালেক সাম্ভলী রহ, -এর কাছে 2003-4 দারুল উলুম দেওবন্দে আরবী সাহিত্যের একটি সবক (التمرين على الإنشاء) ছিল , যে সবকে তার থেকে সারা বছর রচনা সাহিত্য চর্চার সুযোগ হয়েছিল ৷

আখলাক-চরিত্রে তিনি অতুলনীয়, বলা হয়ে থাকে ফেরেশতা সুলভ তবীআতের অধিকারী, আমার কাছে বাস্তবে তাই মনে হয়েছে,

দারুল উলুম দেওবন্দের দীর্ঘ তিন বছরের জীবনে কারোর উপরে কোনদিন তাকে ক্ষুব্ধ হতে দেখিনি ,

আল্লাহ তার জীবনের ছোট বড় সব ঝাল্লাতকে(স্খলন زلات ) মাফ করেন, ছোট-বড় প্রত্যেকটা আমল কবুল করেন ৷ তার প্রতিটা দরসকে সাদকায়ে জারিয়া হিসেবে কবুল করেন ৷

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আর-রাহা সেবাই আমাদের ধর্ম।

বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস

সর্বমোট

আক্রান্ত
১,৫৪০,১১০
সুস্থ
১,৪৯৭,০০৯
মৃত্যু
২৭,১৪৭
সূত্র: আইইডিসিআর

সর্বশেষ

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
স্পন্সর: একতা হোস্ট



©Copyright 2021 Sathivai.com
Desing & Developed BY sayem mahamud